***  Visa On Arrival facility has been resumed in Bangladesh  ***      *** যে সকল ডকুমেন্টেড  বাংলাদেশী কর্মীদের বিএমইটি স্মার্ট কার্ড নাই তাদেরকে হাইকমিশন হতে ওয়েজ আর্নার্স ওয়েলফেয়ার বোর্ডের মেম্বারশীপ কার্ড করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা যাচ্ছে ***  *** মালদ্বীপ থেকে বাংলাদেশ যাওয়ার ক্ষেত্রে করোনা ভাইরাস এর ২ ডোজ ভ্যাকসিন গ্রহনকারী যাত্রীদের আর পিসিআর টেস্ট করার প্রয়োজন হবে না। ***   Travelers visiting Bangladesh are exempted from PCR test who have already completed the full doses of COVID-19 vaccine***    **** মালদ্বীপে অবস্থিত বাংলাদেশী আনডকুমেন্টেড কর্মীদের বর্তমান নিয়োগকারীর মাধ্যমে দ্রুত বৈধ ভিসা/ওয়ার্ক পারমিট সংগ্রহের জন্য অনুরোধ করা যাচ্ছে  ****       **** কর্মক্ষেত্রে সকলকে নিরাপত্তা সরঞ্জাম ব্যবহার ও নিরাপত্তা বিধি অনুসরন করার জন্য অনুরোধ করা যাচ্ছে। **** Maldivian Students can apply for the long term visa for their study purposes in Bangladesh  *** বাংলাদেশ হতে পর্যটক হিসেবে মালদ্বীপ ভ্রমনের ক্ষেত্রে ভিসা অন এরাইভাল প্রাপ্তির জন্য প্রযোজ্য শর্তাবলী যথাযথভাবে অনুসরণ করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা যাচ্ছে। ***  *** প্রবাসে বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশীদের সরকার কর্তৃক চালুকৃত সার্বজনীন পেনশন স্কীমে রেজিস্ট্রেশন করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা যাচ্ছে*** **** আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পোস্টাল ব্যালটে ভোট প্রদান সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি**** ***মালদ্বীপে কাজের ভিসায় আসার পূর্বে যথাযথভাবে ভিসা ও কোম্পানী সম্পর্কে যাচাইবাছাই করে সিদ্ধান্ত নিতে হবে****  *** নতুন ওয়ার্ক ভিসা নিয়ে মালদ্বীপে আসার আগে অবশ্যই বিএমইটি স্মার্ট কার্ড গ্রহন করতে হবে****


e passport

Please use the following link to apply for e passport

ই পাসপোর্ট এর আবেদন এর জন্য প্রদত্ত লিঙ্ক ব্যবহার করুন

https://www.epassport.gov.bd/onboarding


ই পাসপোর্টের নিয়মাবলী:

১। ই-পাসপোর্টের আবেদনপত্র অনলাইনে পূরণ করতে হবে।

২। ই-পাসপোর্ট আবেদনের ক্ষেত্রে কোন কাগজপত্র সত্যায়ন করার প্রয়োজন হবে না।

৩। ই-পাসপোর্ট ফরমে কোন ছবি সংযোজন এবং তা সত্যায়নের প্রয়োজন হবে না।

৪। জাতীয় ‍পরিচয়পত্র (NID) অথবা অনলাইন জন্মনিবন্ধন সনদ (BRC English Version) অনুযায়ী আবেদন পত্র পূরণ করতে হবে।

৫। অপ্রাপ্ত বয়স্ক (১৮ বছরের কম) আবেদনকারী যার জাতীয় পরিচয়পত্র (NID) নাই, তার পিতা অথবা মাতার জাতীয় পরিচয়পত্র (NID) নম্বর অবশ্যই উল্লেখ করতে হবে।

৬। জাতীয় ‍পরিচয়পত্র (NID) অথবা অনলাইন জন্মনিবন্ধন সনদ (BRC English Version) নিম্নোক্ত বয়স অনুসারে দাখিল করতে হবে-

(ক) ১৮ বছরের নিম্নে হলে অনলাইন জন্মনিবন্ধন সনদ (BRC English Version).

(খ) ১৮-২০ বছর হলে জাতীয় ‍পরিচয়পত্র (NID) অথবা অনলাইন জন্মনিবন্ধন সনদ (BRC English Version) 

(গ) ২০ বছরের উর্ধে হলে জাতীয় ‍পরিচয়পত্র (NID) আবশ্যক ।

৭। তারকা চিহ্নিত ক্রমিক নম্বরগুলো অবশ্যই পূরণীয়।

৮। দত্তক/অভিভাবকত্ব গ্রহণের ক্ষেত্রে পাসপোর্টের আবেদনের সাথে সুরক্ষা সেবা বিভাগ, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় হতে জারিকৃত আদেশ দাখিল করতে হবে।

৯। আবেদন অনলাইনে সম্পন্ন করে প্রিন্টকপি কাগজপত্রাদিসহ  হাইকমিশনে দাখিল করতে হবে।

১০। ১৮ বছরের নিম্নের এবং ৬৫ বছরের ‍উর্ধ্বে সকল আবেদনে ই-পাসপোর্টের মেয়াদ হবে ০৫ বছর এবং ৪৮ পৃষ্ঠার।

১১। প্রাসঙ্গিক টেকনিক্যাল সনদসমূহ (যেমন: ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, ড্রাইভার ইত্যাদি) আপলোড/সংযোজন করতে হবে।

১২। প্রযোজ্য ক্ষেত্রে বিবাহ সনদ/নিকাহনামা এবং বিবাহ বিচ্ছেদের ক্ষেত্রে তালাকনামা দাখিল করতে হবে।

১৩। নতুন পাসপোর্টের জন্য আবেদন করা হলে স্থায়ী ঠিকানার কলামে বাংলাদেশের যোগাযোগের ঠিকানা উল্লেখ করতে হবে।

১৪। আবেদনের সময় মূল জাতীয় ‍পরিচয়পত্র (NID), অনলাইন জন্মনিবন্ধন সনদ (BRC English Version) এবং প্রযোজ্য ক্ষেত্রে টেকনিক্যাল সনদ, সরকারি আদেশ (GO)/অনাপত্তি (NOC) প্রদর্শন/দাখিল করতে হবে।

১৫। পাসপোর্ট রি-ইস্যুর ক্ষেত্রে মূল পাসপোর্ট প্রদর্শন করতে হবে।

১৬। হারানো পাসপোর্টের ক্ষেত্রে পুলিশ রিপোর্ট দাখিল করতে হবে।

১৭। ০৬ বছর বয়সের নিম্নের আবেদনের ক্ষেত্রে ৩ আর (3R Size) সাইজের ( ল্যাব প্রিন্ট গ্রে ব্যাকগ্রউন্ড ) ছবি দাখিল করতে হবে।

১৮। পাসপোর্ট হারিয়ে গেলে অথবা চুরি হলে দ্রুত নিকটস্থ থানায় জিডি করতে হবে। পুনরায় পাসপোর্টের জন্য আবেদনের সময় পুরাতন পাসপোর্টের ফটোকপি এবং জিডি কপিসহ আবেদনপত্র দাখিল করতে হবে ।